আপনি যা পড়ছেন
মূলপাতা > দর্শন

অবান্তর লক্ষণ কাকে বলে

অবান্তর লক্ষণ (ইংরেজি: Accident, Accidens) হচ্ছে যুক্তিবিদ্যায় বিশেষ অর্থে ব্যবহৃত একটি শব্দ। একটি পদের গুণ যদি এমন হয় যে, গুণটি কিংবা গুণসমূহ উক্ত পদের জাত্যর্থ বা কানোটেশনের অন্তর্ভূক্ত নয়, জাত্যর্থ থেকে উদ্ভূতও নয়-অর্থ্যাৎ উক্ত গুণকে পদের জাত্যর্থ থেকে অনুমান করা চলে না; কিন্তু গুণটিকে পদের মধ্যে স্থায়ী বা অস্থায়ীভাবে দেখতে পাওয়া যায়, তা হলে এরূপ গুণকে উক্ত পদ বা টার্মের এ্যাকসিডেন্ট বা এ্যাকসিডেন্স বলা হয়। আরো পড়ুন

নিরপেক্ষ এবং সাপেক্ষ কাকে বলে

যুক্তিবিদ্যায় যে পদ অপর কোনো পদের উপর নির্ভরশীল নয় তাকে নিরপেক্ষ পদ (ইংরেজি: Absolute) বলে। যেমন- মানুষ, পানি, মাটি। অপরদিকে যে পদের অর্থ অপর কোনো পদের উপর নির্ভরশীল তাকে রিলেটিভ আ আপেক্ষিক পদ (ইংরেজি: Relative) বলে। যেমন- ছাত্র কিংবা শিক্ষক ছাত্র-শিক্ষককে যুক্তভাবে পরস্পর নির্ভরশীল পদ বা ‘কোরিলেটিভ টার্মস’ বলে। আরো পড়ুন

মেকিয়াভেলিবাদ প্রসঙ্গে

মেকিয়াভেলি নিজ মাতৃভূমি ইতালির সামাজিক ও অর্থনৈতিক দুরবস্থা এবং রাজনৈতিক পরিস্থিতি গভীরভাবে অনুধাবন করেন। একটি শক্তিশালী কেন্দ্রীয় শাসকের অধীনে পঞ্চধা বিভক্ত ইতালিকে ঐক্যের বাঁধনে বাঁধতে তিনি শাসককে দিয়েছেন তার চলার পথে অনেক পরামর্শ বা উপদেশ। আরো পড়ুন

মন্টেস্কুর ক্ষমতা স্বতন্ত্রীকরণ নীতি প্রসঙ্গে

চার্লস দ্য মন্টেস্কুর জন্মের পর ফরাসি দেশে স্বৈরশাসক জনগণের স্বাধীনতা রক্ষার্থে মোটেও উৎসাহ দেখাত না। বরং নানা রকম পীড়নমূলক উপায় অবলম্বন করে জনগণের স্বাধীনতা হরণ করতো। মন্টেস্কু ছিলেন স্বাধীনতার একনিষ্ঠ ভক্ত। তাই কিভাবে জনগণের স্বাধীনতা রক্ষা করা যায় তা নিয়ে মন্টেস্কু বিশ্লেষণ শুরু করেন এবং তাঁর এই চিন্তাভাবনা থেকেই ক্ষমতা স্বতন্ত্রীকরণ নীতির প্রবর্তন করেন। আরো পড়ুন

মন্টেস্কুর রাষ্ট্রচিন্তা প্রসঙ্গে

চার্লস দ্য মন্টেস্কুর রাষ্ট্রদর্শন আধুনিক রাষ্ট্রচিন্তার স্পর্শে ঝলমলিয়ে উঠেছে। যুক্তিবাদ ও অভিজ্ঞতাবাদের সংমিশ্রণে তিনি তাঁর রাষ্ট্রদর্শনকে সাজিয়েছেন। ঘটনা বা পরিস্থিতির প্রকৃতি থেকেই তিনি সিদ্ধান্ত গ্রহণ করতেন। তাই তাঁর রাষ্ট্রদর্শন অভিজ্ঞতা নির্ভর। আধুনিক কালের রাষ্ট্রবিজ্ঞানীরা একে সমাজতাত্ত্বিক পদ্ধতি বলে থাকেন। মন্টেস্কু তাঁর রাষ্ট্রচিন্তাকে স্থায়ীভাবে রূপ দিতে ঐতিহাসিক ও পর্যবেক্ষণমূলক পদ্ধতির সূত্র ধরে সম্মুখ পানে এগিয়েছেন। আরো পড়ুন

স্বাধীনতা সম্পর্কে মন্টেস্কুর ধারণা প্রসঙ্গে

চার্লস দ্য মন্টেস্কুর বিখ্যাত গ্রন্থ The spirit of law-তে স্বাধীনতা বিষয়ক আলোচনাটি অত্যন্ত গুরুত্ব পেয়েছে। জন্মভূমি ফ্রান্সের স্বৈরতান্ত্রিক শাসকদের অত্যাচার ও নিপীড়নমূলক আচরণ মন্টেস্কুর হৃদয়কে বড়ই আঘাত দিত। স্বৈরাচারী শাসকরা সেখানেও জনগণের চিন্তা ও কর্মের স্বাধীনতায় বিশ্বাসী ছিল না। আবার তিনি স্বাধীনতা বলতে যা খুশি তা করাকে বুঝায়নি। আরো পড়ুন

ইতিহাসের দর্শন প্রসঙ্গে

ইতিহাসের দর্শন (ইংরেজি: Philosophy of History) হচ্ছে মানুষের আর্থনীতিক, সামাজিক ও রাষ্ট্রীয় বিকাশের ইতিহাসের অন্তর্নিহিত তাৎপর্য এবং বিধানের আলোচনা। শব্দটি ভলটেয়ার তৈরি করেছিলেন। ইতিহাসের দর্শন নিয়ে প্রাচীন জ্ঞানীগণ আলোচনা করলেও একটি নির্দিষ্ট বিষয় হিসাবে ইতিহাসের দর্শনের বিস্তারিত আলোচনা আমরা অষ্টাদশ শতকের আরো পড়ুন

সমাজদর্শন কাকে বলে

সমাজদর্শন (ইংরেজি: Social Philosophy) হচ্ছে সমাজ সম্পর্কিত দার্শনিক চিন্তাভাবনা। অন্য কথায় সমাজদর্শন হচ্ছে সামাজিক আচরণ এবং সমাজ ও সামাজিক প্রতিষ্ঠানের ব্যাখ্যামূলক সম্পর্কের চেয়ে নৈতিক মূল্যবোধের পরিপ্রেক্ষিতে বিভিন্ন প্রশ্নের গবেষণা। সমাজতত্ত্ব সমাজের সামগ্রিক আলোচনা হলেও তাকে পূর্ণাঙ্গ আলোচনা বলা যায় না। সমাজ বিজ্ঞানের ন্যায় সমাজতত্ত্ব বস্তুনিষ্ট মূল্য-নিরপেক্ষ। সমাজতত্ত্বে বিভিন্ন সামাজিক সম্বন্ধগুলো—অর্থনৈতিক,

প্রাচীন দর্শন প্রসঙ্গে

প্রাচীন দর্শন (ইংরেজি: Ancient philosophy) হচ্ছে পাশ্চাত্য দর্শনের ইতিহাসে প্রাচীন গ্রিক দার্শনিকদের চিন্তাধারার একটি নাম। এই প্রাচীন দর্শনের বিকাশ ঘটে দাসের শোষণের ভিত্তিতে প্রতিষ্ঠিত গ্রিক সমাজে খ্রিষ্টপূর্ব সপ্তম শতকে এবং খ্রিষ্টপূর্ব দ্বিতীয় শতকে রোমের দাসভিত্তিক সাম্রাজ্য। দর্শনের এই প্রাচীন পর্যায়ের বিস্তার খ্রিষ্টিয় ষষ্ঠ শতক পর্যন্ত ধরা যায়। এই প্রাচীন পর্যায়ের

মধ্যযুগীয় দর্শন প্রসঙ্গে আলোচনা

মধ্যযুগীয় দর্শন (ইংরেজি: Medieval Philosophy): খ্রিষ্টীয় পঞ্চম শতকে রোম সাম্রাজ্যের পতন ঘটে। চতুর্দশ-পঞ্চদশ শতকের দিকে ইউরোপে পুঁজিবাদী অর্থনীতিক ব্যবস্থার প্রাথমিক রূপ আত্মপ্রকাশ করতে শুরু করে। এই দুই পর্যায়ের মধ্যবর্তী এক হাজার বছর ইউরোপে দেশসমূহে দর্শনের যে বিকাশ ঘটে, তাকে ইউরোপীয় দর্শনের ইতিহাসে সাধারণত মধ্যযুগীয় দর্শন বলে আখ্যায়িত করা হয়। প্রাচীন গ্রিস

Top