Main Menu

ফড়েদের প্রতি

আমি জানি, আমি দাবা খেলতে বসলেই
পেছনে হুমড়ি খেয়ে পড়বে এক লক্ষ ফড়ে—
যে যার হাতের কাজ ফেলে রেখে
আমার প্রত্যেকটা চাল
পাখি পড়ানোর মত করে বলে দিতে চাইবে।

আমি ঠিক বুঝে উঠতে পারছি না
এর পর
আমি কি তাদের করজোড়ে বলব—

হে ভদ্রমহোদয়গণ,
হয় চুপচাপ বসে থেকে দেখুন
নয় যে যার জায়গায় ফিরে যান

আমার খেলাটা, দোহাই
এখন থেকে আমাকেই খেলতে দিন।।

চিত্রের ইতিহাস: কবিতায় ব্যবহৃত অংকিত চিত্রটি ইতালিয়ান শিল্পী রাফায়েলো সরবির (২৪ ফেব্রুয়ারি ১৮৪৪ – ১৯ ডিসেম্বর ১৯৩১) আঁকা দাবা খেলোয়াড়েরা (The Chess Players) শিরোনামের। শিল্পী এটি এঁকেছিলেন ১৮৮৬ সালে। এখানে চিত্রটির উপরে নিচে সামান্য ছেঁটে ব্যবহার করা হয়েছে।

আরো পড়ুন

সুভাষ মুখোপাধ্যায় (১২ ফেব্রুয়ারি ১৯১৯ – ৮ জুলাই ২০০৩) ছিলেন বিশ শতকের উল্লেখযোগ্য বাঙালি বামপন্থী কবি ও গদ্যকার। তিনি কবি হিসেবে খ্যাতিমান হলেও ছড়া, প্রতিবেদন, ভ্রমণসাহিত্য, অর্থনীতিমূলক রচনা, অনুবাদ, কবিতা সম্পর্কিত আলোচনা, উপন্যাস, জীবনী, শিশু ও কিশোর সাহিত্য ইত্যাদি রচনাতেও উল্লেখযোগ্য অবদান রেখেছিলেন। সম্পাদনা করেছেন একাধিক গ্রন্থ এবং বহু দেশি-বিদেশি কবিতা বাংলায় অনুবাদও করেছেন। “প্রিয়, ফুল খেলবার দিন নয় অদ্য় এসে গেছে ধ্বংসের বার্তা” বা “ফুল ফুটুক না ফুটুক/আজ বসন্ত” প্রভৃতি তাঁর অমর পঙক্তি বাংলায় আজ প্রবাদতুল্য।



« (Previous News)



Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *