ওরা আমাদের গান গাইতে দেয় না, নিগ্রো ভাই আমার পল রবসন

ওরা আমাদের গান গাইতে দেয় না হচ্ছে হেমাঙ্গ বিশ্বাসের গাওয়া একটি আধুনিক বাংলা গণসংগীত। গানটি মাঝারি আকারের ১৭ লাইনের একটি বাংলা গণসংগীত। গানটি রচনা করেছিলেন এবং সুর দিয়েছিলেন কমল সরকার। গানটি হেমাঙ্গ বিশ্বাস কত সালে গেয়েছিলেন তা আমরা জানতে পারিনি। গানটি মাস সিঙ্গার্সের পক্ষে চন্দন সেন প্রকাশিত প্রথম প্রকাশ সেপ্টেম্বর ১৯৮০ হেমাঙ্গ বিশ্বাসের গান নির্বাচিত গানের সংকলন গ্রন্থের ৭৭ পৃষ্ঠায় পরিশিষ্টে প্রকাশিত রয়েছে।

মার্কিন কৃষ্ণাঙ্গ গায়ক ও অভিনেতা পল রোবসন দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধ পরবর্তী সময়গুলোতে মার্কিন মুল্লুকের পুঁজিবাদী সাম্রাজ্যবাদীদের জন্য হুমকি হয়ে উঠেছিলেন। পল রোবসন কয়লা শ্রমিকদের পক্ষে কথা না বলতেন। অবহেলিত কালো মানুষদের অধিকার ও সম্মান আদায়ের জন্য রুখে না দাঁড়াতেন। মার্কিন রাষ্ট্রযন্ত্র তাঁকে মেনে নিতে পারেনি তার কারণ তিনি ভিয়েতনামের বিপ্লবী হো চি মিনের পত্রিকায় তিনি লেখালিখি করতেন। বিভিন্ন শ্রমিক ইউনিয়নগুলোতে নিয়মিত যোগাযোগ করতেন এবং তাদের আন্দোলন সংগ্রামে সক্রিয় অংশ নিতেন।

মার্কিন সরকার ১৯৫০ সালে তাঁর পাসপোর্ট কেড়ে নেয় এবং ১৯৫৮ সাল পর্যন্ত এফবিআই এর কড়া নজরদারি অবস্থায় অন্তরীণ থাকেন তিনি। আমেরিকার ইতিহাসে নজিরবিহীন নজরদারি রাখা হয়েছিলো এই গণমানুষের শিল্পীর ওপর। এই শিল্পীকে নিয়ে গেয়েছিলেন হেমাঙ্গ বিশ্বাস নিচের গানটি।

‘ওরা আমাদের গান গাইতে দেয় না’ গানের কথা

ওরা আমাদের গান গাইতে দেয় না
নিগ্রো ভাই আমার পল রবসন
আমরা আমাদের গান গাই ওরা চায় না।।

ওরা ভয় পেয়েছে রবসন
আমাদের রক্ত চোখকে ভয় পেয়েছে
আমাদের দৃপ্ত কন্ঠে ভয় পেয়েছে
আমাদের কুচকাওয়াজে ভয় পেয়েছে রবসন
ওরা বিপ্লবের ডাঙ্গরুতে ভয় পেয়েছে রবসন।।

ওরা ভয় পেয়েছে জীবনের
ওরা ভয় পেয়েছে মরণের
ওরা ভয় করে সেই স্মৃতিকে
ওরা ভয় পেয়েছে দুঃস্বপনে।

ওরা ভয় পেয়েছে রবসন
জনতার কলোচ্ছাসে ভয় পেয়েছে
একতার তীব্রতায় ভয় পেয়েছে
হিম্মতের শক্তিতে ভয় পেয়েছে রবসন
ওরা সংহারের মূর্তি দেখে ভয় পেয়েছে রবসন।।

আরো পড়ুন:  হেমাঙ্গ বিশ্বাস ছিলেন উপমহাদেশের বাংলা গণসংগীতের জননন্দিত মহাযোদ্ধা

হেমাঙ্গ বিশ্বাসের গাওয়া এই গানটি ইউটিউবে শুনুন তারই কণ্ঠে

পল রোবসন

Leave a Comment

error: Content is protected !!