আপনি যা পড়ছেন
মূলপাতা > প্রাণ > উদ্ভিদ > বৃক্ষ > সিবা হচ্ছে বোম্বাসি পরিবারের সপুষ্পক উদ্ভিদের একটি গণের নাম

সিবা হচ্ছে বোম্বাসি পরিবারের সপুষ্পক উদ্ভিদের একটি গণের নাম

উদ্ভিদের গণ

সিবা

বৈজ্ঞানিক নাম: Ceiba Mill., Gard. Dict. ed. 4 (1754). বাংলা নাম: সিবা ইংরেজি নাম: Kapok tree. আদিবাসি নাম: জানা নেই, জীববৈজ্ঞানিক শ্রেণীবিন্যাস জগৎ/রাজ্য: Plantae – Plants উপরাজ্য: Tracheobionta – Vascular plants অধিবিভাগ: Spermatophyta – Seed plants বিভাগ: Magnoliophyta – Flowering plants শ্রেণী: Magnoliopsida – Dicotyledons উপশ্রেণি: Dilleniidae বর্গ: Malvales পরিবার: Bombacaceae – Kapok-tree family. গণ: Ceiba Mill..

ভূমিকা: সিবা  হচ্ছে বোম্বাসি পরিবারের সপুষ্পক উদ্ভিদের একটি গনের নাম। এই গণের প্রজাতির গাছগুলো বৃহৎ আকারের বৃক্ষ এবং ফুল বিভিন্ন রঙের হতে পারে। বাংলাদেশের এই গণের ১টি প্রজাতি আছে যার নাম শ্বেত শিমুল বা সাদা শিমুল।

বর্ণনা: সিবা গণের উদ্ভিদগুলো মধ্যমাকৃতির বৃক্ষ। এদের পত্র আঙ্গুলাকৃতি, যৌগিক, উপপত্র আশুপাতী। এদের পুষ্প গুচ্ছবদ্ধ বা একল, ক্ষুদ্র শাখায় পত্র জন্মিবার পূর্বেই পুষ্পেদগম। বৃতি পেয়ালাকৃতি, খন্ড রােমশ। দলমন্ডল ৫ টি পাপড়ির সমন্বয়ে গঠিত, পাপড়ি মুক্ত, ঋজু। পুংকেশর ৫ টি, মূলীয় অংশে যুক্ত। গর্ভাশয় অধিগর্ভ ৫-প্রকোষ্ঠী, গর্ভদন্ড ১ টি, রৈখিক।

এদের ফল ক্যাপসিউল, কাষ্ঠল, ৫টি অনুদৈর্ঘ্য খাঁজযুক্ত, বিদারী। বীজ অনেক, রেশমি সূতার মধ্যে নিহিত।

আলোকচিত্রের ইতিহাস: শ্বেত শিমুলের ফুল, আলোকচিত্রটি তুলেছেন Tu7uh.

তথ্যসূত্র:

১. এম এ হাসান (আগস্ট ২০১০)। “অ্যানজিওস্পার্মস ডাইকটিলিডনস” আহমেদ, জিয়া উদ্দিন; হাসান, মো আবুল; বেগম, জেড এন তাহমিদা; খন্দকার মনিরুজ্জামান। বাংলাদেশ উদ্ভিদ ও প্রাণী জ্ঞানকোষ। ৭ (১ সংস্করণ)। ঢাকা: বাংলাদেশ এশিয়াটিক সোসাইটি। পৃষ্ঠা ১৮০। আইএসবিএন 984-30000-0286-0

আরো পড়ুন:  মমরডিকা হচ্ছে কিউকারবিটাসি (শসা লাউ) পরিবারের একটি গণ
Anup Sadi
অনুপ সাদির প্রথম কবিতার বই “পৃথিবীর রাষ্ট্রনীতি আর তোমাদের বংশবাতি” প্রকাশিত হয় ২০০৪ সালে। তাঁর মোট প্রকাশিত গ্রন্থ ১১টি। সাম্প্রতিক সময়ে প্রকাশিত তাঁর “সমাজতন্ত্র” ও “মার্কসবাদ” গ্রন্থ দুটি পাঠকমহলে ব্যাপকভাবে সমাদৃত হয়েছে। ২০১০ সালে সম্পাদনা করেন “বাঙালির গণতান্ত্রিক চিন্তাধারা” নামের একটি প্রবন্ধগ্রন্থ। জন্ম ১৬ জুন, ১৯৭৭। তিনি লেখাপড়া করেছেন ঢাকা কলেজ ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে। ২০০০ সালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ইংরেজি সাহিত্যে এম এ পাস করেন।

Leave a Reply

Top
You cannot copy content of this page