গোলাপি অলকানন্দা বাংলাদেশে দুর্লভ ফুল

বৈজ্ঞানিক নাম: Strophanthus gratus

সমনাম: Roupellia grata Wall. & Hook.; Roupalia grata (Wall. & Hook.) T.Moore & Ayres; Strophanthus stanleyanus Hook.; Strophanthus glaber Cornu ex Holmes; Nerium guineense Brongn. ex Perrot & Vogt; Strophanthus chopraie M.R.Almeida.

বাংলা নাম: গোলাপি অলকানন্দা

জীববৈজ্ঞানিক শ্রেণীবিন্যাস

জগৎ/রাজ্য: Plantae – Plants

অবিন্যসিত: Angiosperms

অবিন্যসিত: Eudicots

অবিন্যসিত: Asterids

বর্গ: Gentianales

পরিবার: Apocynaceae

গণ: Strophanthus

প্রজাতি: Strophanthus gratus (Wall. and Hook.) Baill.

পরিচিতি: গোলাপি অলকানন্দা অ্যাপোসিনাসিয়াই (Apocynaceae) পরিবারের একটি লতা জাতীয় গুল্মের প্রজাতি। এই পরিবারেরই অন্য দুটি প্রজাতি হচ্ছে অলকানন্দা ও রক্তকরবী। এর বৈজ্ঞানিক নামটি বেশ খটোমটো : স্ট্রফ্যানথাস গ্রাটুস (Strophanthus gratus). তবে এর প্রচলিত ইংরেজি নামগুলোর একটি হলো ক্লাইম্বিং ওলিয়েন্ডার আরেকটি হলো রোজ অ্যালামন্ডা। নামেই বোঝা যায়, রক্তকরবী আর অলকানন্দার সাথে এর চেহারা-বৈশিষ্ট্যের মিলও আছে।

কিন্তু এই ফুলটির সুরভী খুবই অনবদ্য। ফুলের চাইতে বরং কনফেকশনারির কোনো সুস্বাদু খাবারের ঘ্রাণ বলেই মনে হবে। এই কারণেই ফুলটির আরেকটি প্রচলিত নাম ক্রিমফ্রুট। ফুলটি একটু শক্তপোক্ত, একদম নাজুক নয়।

বিস্তৃতি: এরা লাইবেরিয়া, বুরকিনা ফাসো, আইভরি কোস্ট, ঘানা, নাইজেরিয়া, ক্যামেরুন, নিরক্ষীয় গিনি এবং গ্যাবনের আদি নিবাসী। এটি তাইওয়ানের মধ্যে প্রকৃতিগত করা হয়েছে। এই ফুলটি বাংলাদেশের রমনা পার্কে আছে।

আরো পড়ুন:  কমলা ঢাক লতা ব্রাজিলসহ গোটা দুনিয়ার এক আলংকারিক লতা

Leave a Comment

error: Content is protected !!