আশ্চর্য কলম

এই যে দাদা, এতদিনে বেরিয়েছে
নতুন ফর্মুলায় তৈরী
খলিফাচাঁদের আশ্চর্য কলম — ‘খাইখাই’
চোর, জোচ্চোর, লোচ্চা, লম্পট, খাজা, খোজা
পণ্ডিত, মূর্খ যে কেউ চোখ বুঁজে
রাতারাতি লেখক হতে পারে।
একলম হাতে থাকলে
বসা বা দাঁড়ানো, চিৎ বা উপুড়
যে কোন অবস্থায়
প্রকাশ্যে ঝোপ বুঝে কোপ দেওয়া যায়—
কোনরকম আগবাগ বা রাখঢাকের দরকার হয় না।

দিন কে রাত, সোজাকে কাৎ
হতাশাকে হাত করতে
এ কলমের জুড়ি নেই।
মনে রাখবেন নতুন ফর্মুলায় তৈরী
খলিফাচাঁদের আশ্চর্য কলম — ‘খাইখাই’।

রাঘববোয়াল থেকে চুনোপুঁটি
হরেক সাইজের পাওয়া যায়।
সঙ্গে বিনামূল্যে চুন এবং কালি
ও লাইনে
যদি কোন ভদ্রলোকের আবশ্যক হয়
বলবেন।।

চিত্রের ইতিহাস: কবিতায় ব্যবহৃত অংকিত চিত্রটি ইরানি কার্টুনিস্ট জাভেদ আলীজাদেহ-এর (জন্ম: ৯ জানুয়ারি ১৯৫৩) আঁকা তীব্র কলম শিরোনামের। শিল্পী এটি ২০১০ সালে আঁকেন। এখানে চিত্রটির পটভূমি বামে ডানে বাড়ালেও চিত্রটিকে হুবহু ব্যবহার করা হয়েছে।

আরো পড়ুন:  বোনটি

Leave a Comment

error: Content is protected !!