গোথা কর্মসূচির সমালোচনা – জার্মান শ্রমিক পার্টির কর্মসূচির ওপর পার্শ্বটিকা

গোথা কর্মসূচির সমালোচনা

১. ‘শ্রমই সকল সম্পদ ও সকল সংস্কৃতির উৎস এবং যেহেতু কার্যকর শ্রম একমাত্র সমাজের ও সমাজের মাধ্যমেই সম্ভব, সেহেতু সমাজের সকল সদস্য সমান অধিকার বলে অটুট পরিমাণে শ্রমফলের মালিক।’ অনুচ্ছেদের প্রথম অংশ : ‘শ্রমই সকল সম্পদ ও সকল সংস্কৃতির উৎস।’ শ্রম সকল সম্পদের উৎস নয়। আরো পড়ুন

কার্ল মার্কসের ‘পুঁজি’র প্রথম খন্ডের পর্যালোচনা

উদ্বৃত্ত মূল্য হচ্ছে মাগনা শ্রম

ইতােমধ্যে বিদ্যমান পার্লামেন্টারী পার্টিগুলির সঙ্গে একটা নতুন পার্টি জুড়ে দিয়েছে সর্বজনীন ভােটাধিকার – সেটা হলো সােশ্যাল-ডেমােক্র্যাটিক পার্টি। উত্তর-জার্মান রাইখস্টাগের গত নির্বাচনে এই পার্টি নিজস্ব প্রার্থীদের দাঁড় করিয়েছিল বেশির ভাগ বড় শহরে, সমস্ত কারখানা মহল্লায় এই পার্টির ছয় কিংবা আট জন প্রার্থী ডেপুটি নির্বাচিত হন। এর আগের নির্বাচনে যা ছিল সেটার সঙ্গে তুলনায় এই পার্টি অনেকটা বেশি শক্তিশালী হয়ে উঠছে, তাই ধরে নেওয়া যেতে পারে এটা এখনও বাড়ছে – অন্তত আপাতত। আরো পড়ুন

শ্রম হচ্ছে প্রকৃতির সঙ্গে মানুষের প্রতিমুহুর্তের ক্রিয়া-প্রতিক্রিয়ার সম্পর্ক

শ্রম (ইংরেজি: Labour) বলতে শারীরিক ও মানসিক উভয় প্রকার শ্রমকেই বুঝায়। প্রকৃতির সঙ্গে মানুষের রয়েছে প্রতিমুহুর্তে ক্রিয়া-প্রতিক্রিয়ার সম্পর্ক। বস্তুজগৎ যেমন মানুষকে স্পর্শ করে এবং আঘাত করে, মানুষও তেমনি বস্তুজগতকে স্পর্শ করে ও প্রত্যাঘাত করে। এই প্রক্রিয়ায় প্রকৃতি ও মানুষ উভয়েরই পরিবর্তন ঘটে। আরো পড়ুন

মানসিক ও দৈহিক শ্রমের মধ্যেকার বিরোধ হচ্ছে শ্রেণিবিভক্ত সমাজের বৈশিষ্ট্য

শ্রমের বিভাগ কথাটি আজ অত্যান্ত সুপরিচিত। শ্রমের ক্ষেত্রে মানসিক ও দৈহিক শ্রমের বিভাগটিও পরিচিত। মানসিক ও দৈহিক শ্রমের মধ্যেকার বিরোধ হচ্ছে শ্রেণিবিভক্ত সমাজের বৈশিষ্ট্য। কিন্তু সভ্যতার আদিতে শ্রমের কোনোরূপ বিভাগই ছিল না। অনুন্নত অবস্থায় জীবন রক্ষার্থে প্রত্যেক ব্যক্তিকে প্রয়োজনীয় সমস্ত শ্রমই করতে হতো। আরো পড়ুন

প্রলেতারিয়েত অষ্টাদশ শতক পরবর্তীকালের শ্রমশক্তি বিক্রিকারী শ্রমিক শ্রেণি

প্রলেতারিয়েত (ইংরেজিতে Proletariat) হচ্ছে পুঁজিবাদী সমাজের অন্যতম প্রধান শ্রেণি। প্রলেতারিয়েত হচ্ছে উৎপাদনের উপায় থেকে বঞ্চিত মজুরি শ্রমিকের শ্রেণি, যারা নিজ শ্রমশক্তি বিক্রয় করে জীবনধারণ করে এবং বুর্জোয়াদের দ্বারা শোষিত হয় সাম্যবাদী ও শ্রমিক শ্রেণির পার্টির নেতৃত্বে সামাজিক প্রগতি ও শান্তির লক্ষ্যে প্রলেতারিয়েত পুঁজিবাদের বিরুদ্ধে সকল নিপীড়িত ও শোষিত জনগণের সংগ্রাম পরিচালনা করে।আরো পড়ুন

কমিউনিস্ট পার্টির ইশতেহার, প্রলেতারিয়েত ও কমিউনিস্টগণ

— কার্ল মার্কস ও ফ্রিডরিখ এঙ্গেলস কমিউনিস্ট পার্টির ইশতেহার, প্রলেতারিয়েত ও কমিউনিস্টগণ সমগ্রভাবে প্রলেতারীয়দের সঙ্গে কমিউনিস্টদের কী সম্বন্ধ? শ্রমিক শ্রেণীর অন্যান্য পাটিগুলির প্রতিপক্ষ হিসাবে কমিউনিস্টরা স্বতন্ত্র পার্টি গঠন করে না। সমগ্রভাবে প্রলেতারিয়েতের স্বাৰ্থ থেকে বিচ্ছিন্ন স্বতন্ত্র কোনো স্বার্থ তাদের নেই। প্রলেতারীয় আন্দোলনকে রূপ দেওয়া বা গড়ে পিটে তোলার জন্য তারা নিজস্ব কোনও গোষ্ঠীগত নীতি খাড়া … Read more

সোভিয়েত প্রজাতন্ত্রে নারী শ্রমিক আন্দোলনের কর্তব্য

কমরেডগণ, নারী শ্রমিক এই সম্মেলনকে অভিনন্দিত করতে পেরে আমি অতি আনন্দিত। প্রতিটি মেহনতি নারী এবং মেহনতি জনগণের প্রতিটি সচেতন সদস্য যে সব বিষয় ও প্রশ্নে স্বভাবতই আগ্রহী, তা নিয়ে আমি কিন্তু আলোচনা করব না। সে প্রশ্ন হলো সবচেয়ে জরুরি— এ প্রশ্ন হলো রুটি এবং আমাদের সামরিক পরিস্থিতির প্রশ্ন। কিন্তু আপনাদের সভার বিবরণ সংবাদপত্রে যা দেখেছি তাতে এই প্রশ্নগুলি বিশদভাবে আরো পড়ুন

চৈত্রের দুপুরে দুই শ্রমিক ও আমার প্রেমিক

কচি কলাপাতারঙ নবীন গাছের পাশে ঘুমাচ্ছিল এক মাঝ বয়সী পার্থিব ভ্যানচালক হঠাত ঘুম ভাঙলো স্বাপ্নিক উত্তেজনায়, দুর্বার চেঁচালো ‘আমি তোকে খুন করব’ নাক মুখ দিয়ে মিনিট খানেক ট্রাক-ইঞ্জিনের মতো গোঁ গোঁ শব্দ, তারপর চোখ খুলে এদিক ওদিক তাকিয়ে আবার ঘুমালো অন্ধ কুঠুরিতে; চৈত্রের দুপরে ভ্যানের উপরে শুয়ে আছে, এক মরা লাশ যেন দক্ষিণে মাথা, দখিনা … Read more

সমাজতান্ত্রিক অর্থনীতি হচ্ছে অস্তিত্বশীল সমাজতান্ত্রিক অর্থনৈতিক প্রক্রিয়ার অর্থনীতিবিদ্যাগত তত্ত্ব

সমাজতান্ত্রিক অর্থনীতি (ইংরেজিতে: Socialist economics) বলতে সূত্রায়িত করা হয় প্রস্তাবিত এবং অস্তিত্বশীল সমাজতান্ত্রিক অর্থনৈতিক প্রক্রিয়ার অর্থনীতিবিদ্যাগত তত্ত্ব, অনুশীলন এবং নিয়মসমূহকে। এটি শুরু হয় এই প্রত্যয় থেকে যে, “ব্যক্তি একা বিচ্ছিন্নভাবে বাস বা কাজ করতে পারে না কিন্তু একে অপরের সাথে সহযোগিতার মাধ্যমে বাস করে। অধিকন্তু, যা জনগণ উৎপাদন করে তার সবকিছুই, কিছুটা জ্ঞানে হলেও, সামাজিক … Read more

error: Content is protected !!