দশ আঙ্গুলের স্পর্শে একটি প্রত্যাশিত দিন

তারা জানেনা জন্ম নেওয়ার পড়ে তাদের কি পরিচয় হবে,

শুধু জেনেছে দুঃখ-কষ্ট, ক্ষুধা-দারিদ্র, যুদ্ধ-দখল দেখতে হবে,

তাদের জীবিত দিনগুলো কি তারুণ্যে কাটবে?

নাকি আঘাত আর যন্ত্রণায় কাটবে?

যাই ঘটুক না কেনো শুধু জানে একটি ঘুর্ণায়মান চাকা চালু হবে,

তাই আপনারা হাতে নরম কাদা নিন, তারপরে সেটা চাকা উপর রাখুন।

ধীরে ধীরে জাগিয়ে তুলুন নিজেদের ভেতরের শক্তিকে,

আর কথা বলুন ইতিহাসের রক্ত মাখা কাহিনীর সাথে-

দেখুন সেসময়ের অসমাপ্ত কাজগুলোকে,

এবার দাগ লাগা মগজকে ইস্পাত মতো করুন।

পোড়াতে শিখুন দুঃখগুলোকে,

দেখবেন একটা বোমার বিস্ফোরণের চেয়েও-

নতুন কিছু ঘটতে থাকবে আপনার চারপাশে,

যা পাল্টে দিতে পারে প্রচলিত দিন।

চাকায় যেমন প্রেম, শক্তি আর ধৈর্য আছে,

তেমনি আছে বেঁচে থাকার এক অসাধারণ গতি।

৩০.০৩.২০১৮

পার্বতীপুর

আরো পড়ুন:  শুভ বিদায়

Leave a Comment

error: Content is protected !!